English Version

জাবিতে বিজ্ঞান সচেতনতা বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

আরিফুল ইসলাম আরিফ, জাবি: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) বিজ্ঞানের সুফল এবং বৈজ্ঞানিক আবিষ্কার সম্পর্কে জনসচেতনতা তৈরি এবং তরুণদের দক্ষতা বাড়াতে ‘বিজ্ঞান যোগাযোগ ও লিডারশিপ স্কিল ডেভলপমেন্ট’ শীর্ষক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশের সহযোগিতায় এবং সায়েন্স পোর্টার বাংলাদেশের আয়োজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের গাণিতিক ও পদার্থ বিষয়ক অনুষদের একটি কক্ষে ৩০ জন শিক্ষার্থীকে নিয়ে দিনব্যাপী এ প্রশিক্ষণ কর্মশালাটি অনুষ্ঠিত হয়।

দিনব্যাপী আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিজ্ঞানের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়, যার মাঝে বিজ্ঞানভিত্তিক বার্তা জনসাধারণের কাছে পৌছানো, কৃষিতে বায়োটেকনোলজির ব্যবহার, এবং তার বিকাশে কাজ করতে তরুণ সমাজ কিভাবে অবদান রাখতে পারে। এছাড়া অংশগ্রহণকারীরা এ সকল ব্যাপারে প্রকল্প পরিকল্পনা এবং বাস্তবায়নের বিষয়ে দক্ষতা উন্নয়েনের জন্য প্রশিক্ষণের পাশাপাশি এ বিষয়গুলোর উপর ব্যবহারিক সেশনে যোগদান করেন।

প্রশিক্ষণ কর্মশালায় বিশ্ববিদ্যালয়ের গাণিতিক ও পদার্থ বিষয়ক অনুষদের ডিন অধ্যাপক অজিত কুমার মজুমদার, ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের পরিচালক অধ্যাপক মোহাম্মদ আলমগীর কবির, ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর আ.স.ম. ফিরোজ-উল-হাসান, কটন ডেভেলপমেন্ট বোর্ডের এক্সিকিউটি ডিরেক্টর ফরিদ উদ্দিন, এফএফবির উপদেষ্টা জীবনকৃষ্ণ বিশ্বাস এবং ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশের সিইও মোহাম্মদ আরিফ হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

স্বাস্থ্যের খবর জানুন

এ সময় জাবির বায়োটেকনোলজি এন্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক এবং সাইন্সপোর্টার বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠাতা আবদুল্লাহ মোহাম্মদ সোহায়েল বলেন, বিজ্ঞান যোগাযোগের প্রসারে তরুণদের সম্পৃক্ত করতে হবে। শিক্ষার্থীদের ক্ষমতায়ন এবং কৃষিক্ষেত্রে প্রযুক্তির ব্যবহারের সুযোগ এবং এ সম্পর্কে জনসাধারণদের সচেতন করার জন্য এ ধরনের আরও অনুষ্ঠান করা প্রয়োজন। কৃষিক্ষেত্রে উন্নয়নের জন্য আমাদের মূল অংশীদারদেরকে সম্পৃক্ত করে পারস্পরিক সহযোগিতা এবং সক্ষমতা অর্জনের মত কর্মসূচি বাড়াতে হবে।

এফএফবির উপদেষ্টা ডাঃ জীবনকৃষ্ণ বিশ্বাস বলেন, মানুষকে কেবল জিএম ফসল নিরাপদ বললেই হবে না। মানুষকে বুঝতে হবে কিভাবে এবং কেন একটি ফসলকে জিএম (জেনেটিকালিমডিফাইড) বলা হয়। অতএব, তাদেরকে প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে আমাদের সহায়তা করা দরকার, যাতে তারা একটি বস্তুনিষ্ঠ সিদ্ধান্ত নিতে পারে। বিডিটুডেস/এএনবি/ ১৮ জানুয়ারি, ২০২০

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

3 × one =