English Version

ঝিনাইদহে আম্পান ঘূর্ণিঝড়ে শতবর্ষী বটগাছ উপড়ে ঘরের উপর পড়ে স্ত্রীর মৃত্যু, স্বামী আহত!

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

মো: জাহিদুর রহমান তারিক, ঝিনাইদহ: ঝিনাইদহ সদর উপজেলার হলিধানী রেশম বোর্ড সংলগ্ন সড়কের পাশে সরকারি জমিতে, বসবাস করতেন হত দরিদ্র বদর উদ্দিন। বুধবার ২০ শে মে রাত আনুমানিক ১১টার দিকে ঝড়ের আঘাতে বটগাছ ভেঙে পড়ে বদর উদ্দিনের টুকরি ঘরে, এতে সাথে সাথেই চাপা পড়ে মৃত্যুবরন করেন স্ত্রী নাজেরা বেগম (৫৫)। আহত হন বদর উদ্দিন ও তার দুই ছেলে।

নিহতের ছেলে আশরাফুল জানান, রাতে যখন আমাদের ঘরে গাছ পড়ে তখন অনেক ডাকা ডাকি করেও কাউকে পাশে পায়নি। পরে সকালে ফায়ার সার্ভিস এসে গাছ কেটে আমার মাকে উদ্ধার করে, সে সময় সে মৃত। সকালে ডিসি স্যার এসে আমাদের ২০,০০০ (বিশ হাজার) টাকা ও ২০ (বিশ) কেজি চাউল দিয়ে গেছেন।

এ ব্যাপারে নিহতের স্বামী আহত বদর উদ্দিন সাংবাদিককে জানান, আমরা গরিব মানুষ আমাদের থাকার মত নিজস্ব কোনো জমি নাই। তাই দীর্ঘদিন স্ত্রী সন্তান নিয়ে এই খালপাড়ে আছি। সরকারি একটা ঘরের জন্য জনপ্রতিনিধি নেতাদের দ্বারে দ্বারে ঘুরেছি কিন্তু কাজ হয়নি। কারণ আমরা গরিব মানুষ। এ পর্যন্ত কোনো জনপ্রতিনিধি আমাদের খোঁজ নেইনি।

গতকাল রাতে যখন ঝড় উঠে তখন আমরা আল্লাহর উপর ভরসা করেই জেগেই ছিলাম, কিন্তু আল্লাহ আমার স্ত্রীকে এভাবে নিয়ে গেল! এটা মানতে পারছিনা, আল্লাহ আমাকে নিয়ে গেল না ক্যান? এদিকে এই মর্মান্তিক ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া বিরাজ করছে। বিডিটুডেস/এএনবি/ ২২ মে, ২০২০

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

nineteen − eight =