English Version

প্রধানমন্ত্রীকে ঠাকুরগাঁও প্যানেল প্রত্যাশী কমিটির খোলা চিঠি

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

গৌতম চন্দ্র বর্মন, ঠাকুরগাঁও: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে খোলা চিঠি দিয়েছে প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০১৮’ সালের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ না পাওয়া ৩৭১৪৮ জন প্যানেল প্রত্যাশীর পক্ষে ঠাকুরগাঁও জেলা প্যানেল প্রত্যাশী কমিটি। মঙ্গলবার (২ জুন) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ চিঠি পাঠান তারা।

চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, মুক্তিযুদ্ধের সর্বাধিনায়ক, স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কন্যা এবং গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, আমাদের সশ্রদ্ধ সালাম নিবেন, আসসালামু আলাইকুম। আপনার সফল নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হয়েছে। আপনার সঠিক, বিচক্ষণ এবং সাহসী নেতৃত্বে দেশের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান হয়েছে এবং হচ্ছে।

বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে আপনি ২০০০ জন ডাক্তার এবং ৫ হাজার ৫৪ জন নার্স নিয়োগ দিয়েছেন। করোনাভাইরাস মহামারির কারণে দেশব্যাপী বন্ধের প্রেক্ষিতে ক্ষতিগ্রস্তদের প্রণোদনা প্যাকেজ দিয়ে যাচ্ছেন। আপনি দেশকে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আনার জন্য সকল ধরনের পদক্ষেপ নিয়ে যাচ্ছেন।মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, দেশের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে প্রায় ৬৩ হাজার শূণ্যপদ রয়েছে। তীব্র শিক্ষক সঙ্কটের মধ্যে আছে প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলো।

করোনা পরিস্থিতিতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিশুদের শিক্ষাব্যবস্থা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে। সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষক সঙ্কট দূর না হলে এই ক্ষতি আরো ভয়াবহ হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, ১৯৭৩ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ৪৪ হাজার শিক্ষক নিয়োগ দিয়েছিলেন। শিক্ষা বিস্তারে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অবদান অশেষ।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, আমরা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০১৮ সালের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ না পাওয়া ভাগ্য বিলম্বিত ৩৭১৪৮ জন প্যানেল প্রত্যাশী। সেই মহান নেতা, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীকে ১৯৭৩ সালের তার শিক্ষা বিস্তারের অবদানের পুনরাবৃত্তি চাই।

আমরা ৩৭১৪৮ জন প্যানেল প্রত্যাশী, আমরা প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০১৮ সালে প্যানেল গঠনের মাধ্যমে নিয়োগ চাই। কারণ প্যানেলে নিয়োগের ফলেই প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক সঙ্কট দূর হবে, শূণ্যপদ পূরণ হবে, শিক্ষার যথাযথ মূল্যায়ন ও বেকার সমস্যার সমাধান হবে এবং শিক্ষা ক্ষেত্রে করোনাভাইরাস জনিত ক্ষতি পুষিয়ে নেওয়া সম্ভব হবে।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সেই ধারাবাহিকতা অনুসরণ করে আমাদের ৩৭১৪৮ জন প্যানেল প্রত্যাশীকে প্যানেল গঠন করে নিয়োগ দেওয়ার জন্য আপনার কাছে আকুল আবেদন জানাচ্ছি। ৩৭১৪৮ জন প্যানেল প্রত্যাশীর পক্ষে ঠাকুরগাঁও জেলা প্যানেল প্রত্যাশী কমিটি। বিডিটুডেস/এএনবি/ ০২ জুন, ২০২০

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

10 − eight =