English Version

স্বামী বদলই নাঙ্গলকোটের পান্নার নেশা

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

শরীফ আহমেদ মজুমদার, কুমিল্লা: কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার ফাতেমা আক্তার পান্না (৩৮) নামের এক নারীর বিরুদ্ধে। বহু যুবকের সাথে বিয়ের মাধ্যমে প্রতারণা করে তাদের কাছ থেকে হাতিয়ে নিয়েছেন কোটি টাকা। সে উপজেলার মক্রবপুর ইউপির মক্রবপুর গ্রামের আবু বক্কর চৌধুরীর মেয়ে ফাতেমা আক্তার পান্না (৩৮)।

প্রথম প্রেমের বলি উপজেলার বান্নগর গ্রামের ফয়সাল মোল্লা নামের এক যুবক ১৮ বছর পূর্বে প্রেমের ফাঁদে পেলে ৩ বছর সংসার করার পর তার কাছ থেকে প্রায় ৩০ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়ে তাকে ডিভোর্স দেয় ,তার আপন খালাতো বোনের জামাই রায়কোট উত্তর ইউপির পশ্চিম খাঁড়ঘর গ্রামের মৌলভী ইউনূছের ছেলে আব্দুর রহিমকে বিয়ে করেন। ৮ম শ্রেণিতে পড়ুয়া ফাইজান মাহমুদ অনি নামের একটি পূত্র সন্তান নিয়ে নাঙ্গলকোট পৌরসদরের একটি ভাড়ায় বাসা থাকতেন।

হেলথ টিপস পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

আব্দুর রহিম শুক্রবার সাংবাদিকদের জানান,  ছয় বছর পূর্বে বাহারাইন পাড়ি জমান আব্দুর রহিম,পান্নার বাবার বাড়ীতে পান্নার নামে ৩শতক জমি কিনে মাটি ভরাট করে,সম্প্রতি বিদেশ থেকে এসে বাড়ী করার কথা ছিল।বিদেশ থেকে আসার আগে স্ত্রীর একাউন্ট রাখা ১৫ লাখ টাকা।৫ ভরি স্বর্ণালংকার ফ্রিজ,এলইডি, সোফাসহ মালামাল নিয়ে এবার উধাও কথিত এক ডাক্তারের সাথে তার বাড়ী বি,বাড়ীয়া জেলার নবীনগর উপজেলার শ্যাম গ্রামের আব্দুল হাফেজ মোল্লার ছেলে কথিত ডাক্তার মাহফুজ। গত ৮ জুন ১৫ লাখ নগদ টাকা ৫ ভরি স্বর্ণালংকার ফার্নিচার মালামাল নিয়ে

পালিয়ে যায়। তার এক স্ত্রী ও দশম শ্রেণিতে পড়ুয়া একটি সন্তান আছে। মাহফুজ ও অনেক বিয়ের নায়ক। এ বিষয়ে পান্নার ৩য় স্বামী ডাঃ মাহফুজ বলেন,ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন,পান্নার বাবার থেকে বিস্তারিত জানবেন। বিডিটুডেস/আরএ/১৯ জুলাই, ২০১৯

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

15 − 6 =